| |

Ad

এটি এখন টক অব দ্যা টাউন

আপডেটঃ ৭:১৩ অপরাহ্ণ | জানুয়ারি ১৫, ২০১৯

বিনোদন সংবাদ : এই থাকতে মনে করেন, খুশিতে, ঠেলায়, ঘোরতে এরকম একটা সংলাপ ভেসে বেড়াচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। শুধু তাই নয়, নাগরিকগণ তাদের ব্যক্তিগত আড্ডাতেও তুলে আনছেন এই সংলাপটি। এটির জন্মসাল ২০১৪। সে সময় একটা ভোটকেন্দ্রের সামনে দাঁড়িয়ে এক নারী ভোটার এই উক্তিটি করেছিলেন। একটি বেসরকারি টেলিভিশনের ধারণকৃত সেই ভিডিওটি তখন জনপ্রিয়তা না পেলেও ঠিক পাঁচ বছরের মাথায় টিকটকের কল্যাণে এটি এখন টক অব দ্যা টাউন।

এটির নেপথ্য নায়িকার নাম আরশিয়া সিদ্দিকা রোদসী। টুকটাক বিজ্ঞাপনে ও মিউজিক ভিডিওতে কাজ করেছেন তিনি। নিতান্ত শখের বসেই টিকটকে ভিডিও আপলোড করেন। এটি সেরকমই এক প্রয়াস। কিন্তু এই ভিডিওটি বানানোর দুই সপ্তাহের মাথায় এসে রোদসী অবাক!

তিনি বলেন, “এই কন্টেন্ট নিয়ে ত্রিশটির উপরে ভিডিও রয়েছে। আমার ভয়েসটা ভাল লেগে যায়। বোনকে সাথে নিয়ে বানিয়ে ফেলি টিকটক ভিডিও। এখন তো দেখছি এর ভিউ আট লাখের উপরে। এটা সত্যিই অবাক হওয়ার মত। ৩১ ডিসেম্বর রাতে নিজ বাসায় ভিডিওটি ধারণ করেছি। এইখানে ছোট বোন আশনা সিদ্দিকী আমার সাথে স্ক্রিন শেয়ার করেছে, আর সিনেমাটোগ্রাফার ছিল আমাদের মা রোকেয়া সিদ্দিকী।

ভিডিও তৈরি ও শেয়ারিংয়ের চীনভিত্তিক অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ টিকটক ইতিমধ্যে তরুণদের মধ্যে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এতে বিভিন্ন চলচ্চিত্রের সংলাপ, গানের কথপোকথনের সাথে মিল রেখে অ্যাপস ব্যবহারকারীরা মুখ বা অঙ্গভঙ্গি মিলিয়ে ভিডিও বানান।