| |

Ad

স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের শিকার

আপডেটঃ ৬:৫৮ অপরাহ্ণ | জানুয়ারি ৩০, ২০১৯

মো. আবু রায়হান, শেরপুর ঝিনাইগাতী প্রতিনিধি:
শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে ধর্ষণের চেষ্টার শিকার হয়েছে ৬ষ্ট শ্রেণী পড়–য়া এক কিশোরী (১২)। সকালে উপজেলা নলকুড়া ইউনিয়নের গজারীপাড়া গ্রামের উক্ত ঘটনায় ঝিনাইগাতী থানায় মামলা হলেও এখন পর্যন্ত গ্রেফতার হয়নি একমাত্র আসামী ২ সন্তানের জনক লম্পট আবুল হাশেম (৪০)। ঘটনার পর থেকেই লম্পট আবুল হাশেম পালিয়েছে। পুলিশ জানায়, ঝিনাইগাতী উপজেলার নলকুড়া ইউনিয়নের গজারীপাড়া গ্রামের কৃষক পরিবারের সন্তান এবং পাশ্ববর্তী শালচূড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬ষ্ট শ্রেণীর শিক্ষার্থী ওই কিশোরী কলা বিক্রি করতে বাড়ির সামনে আবুল হাশেমের মুদি দোকানে যায়। ওই সময় দোকান মালিক হাশেম দোকানে না থাকায় তার বাড়িতে খোঁজ নিতে গেলে কিশোরীকে ফাঁকা বাড়িতে একা পেয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে আবুল হাশেম। কিশোরীর ডাক-চিৎকারে পরিবারের লোকজন গিয়ে তাকে উদ্ধার করে ঝিনাইগাতী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। কিশোরীর মা’র লিখিত অভিযোগ পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। তবে ওই কিশোরীর পরিবারের অভিযোগ, তাকে ধর্ষন করেছে ওই লম্পট এবং ঘটনার পর রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
এব্যাপারে ঝিনাইগাতী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিপ্লব বিশ্বাস ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন আসামী গ্রেফতারে জোর তৎপরতা চলছে।