| |

Ad

ভূমি দখলের বার্ষিকীতে গাজায় লাখো ফিলিস্তিনির বিক্ষোভ

আপডেটঃ ১১:৫২ পূর্বাহ্ণ | মে ১৬, ২০১৯

ফিলিস্তিন দখল করে ইহুদিবাদী ইসরায়েল প্রতিষ্ঠার বার্ষিকীতে আজ (বুধবার) গাজায় লাখ লাখ মানুষ বিক্ষোভ করেছেন। ফিলিস্তিনিরা প্রতি বছর ১৫ মে মাতৃভূমি হারানোর বার্ষিকীকে ‘নাকবা’ বা বিপর্যয় দিবস হিসেবে পালন করেন। ১৯৪৮ সালের এই দিনে অন্তত ৮ লাখ ফিলিস্তিনিকে তাদের ঘরবাড়ি থেকে উচ্ছেদ করে ইসরায়েল প্রতিষ্ঠার ঘোষণা দেওয়া হয়।

বিক্ষোভকালে গাজার সর্বত্র সব শ্রেণীর মানুষ রাস্তায় নেমে ইসরায়েলি দখলদারিত্বের অবসানের দাবি জানান। একইসঙ্গে তারা ফিলিস্তিনিদেরকে তাদের পূর্বপুরুষদের ভূখণ্ডে ফিরে যাওয়ার অধিকার বাস্তবায়ন ও গাজা অবরোধ প্রত্যাহারের আহ্বান জানান।

নাকবা দিবস উপলক্ষে গাজার স্কুল-কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়সহ পাবলিক প্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ ঘোষণা করা হয় এবং সাধারণ মানুষের পাশাপাশি সরকারি কর্মচারী-কর্মকর্তারাও বিক্ষোভে অংশ নেয়। ব্যবসায়ী ও দোকানিরাও দিবসটি উপলক্ষে নিজেদের প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে বিক্ষোভে অংশ নেয়। আল-মায়াদিন টিভি চ্যানেল জানিয়েছে, ইহুদিবাদী সেনারা বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে গুলি ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করেছে।

ফিলিস্তিনের ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের মুখপাত্র হাযেম কাসেম বলেছেন, ফিলিস্তিনি জনগণ কখনোই নিজেদের অধিকার ও আদর্শ থেকে পিছু হটবে না। তিনি বলেন, গাজায় কয়েক লাখ মানুষের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ সবাইকে এ বার্তাই দিচ্ছে যে দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনিদের সংগ্রাম কখনোই বন্ধ হবে না এবং তাদের দৃঢ় মনোবলও নষ্ট হবে না।